Home বাংলাদেশ

নির্বাচনে সেনাবাহিনী থাকায় জনগণের আস্থা বেড়েছে: জাপা

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদা।

বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৭টায় ভাষণ শুরু হয়। ভাষণে তিনি প্রধান নির্বাচন কমিশনার এ কথা বলেন। আর এই বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে জাতীয় বলেছে, একাদশ জাতীয় নির্বাচনে সেনাবাহিনী থাকায় জনগণের আস্থা বেড়েছে।

এর আগে বেলা ১১টায় ভোটের তারিখ চূড়ান্ত করতে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের অফিসে বৈঠকে ইসির বৈঠক হয়। কমিশনের ৩৯তম বৈঠকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ছাড়াও নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, মো. রফিকুল ইসলাম, বেগম কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদত হোসেন চৌধুরী ও নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।

নির্বাচন কমিশনে বৈঠক শুরুর কিছুক্ষণ পরে বিটিভি, বেতারের রেকর্ডিং টিম প্রবেশ করে সিইসির কক্ষে। যাবতীয় প্রস্তুতি শেষে ভাষণ রেকর্ডিং করা হয়।