নতুন প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের সময়সীমা ঘোষণার প্রতিশ্রুতি তেরেসা মের

ব্রেক্সিট নিয়ে জুনের প্রথম সপ্তাহে আবার ভোট বৃটিশ পার্লামেন্টে। এর পরই উত্তরসূরি নির্বাচনের জন্য একটি সময়সীমা ঘোষণার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে। ক্ষমতাসীন তার নিজ দল কনজার্ভেটিভের সিনিয়র এমপিদের সঙ্গে তিনি বৈঠক করেছেন। সেই বৈঠকে ওই চুক্তি হয়েছে বলে খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি। এতে বলা হয়, তেরেসা মের সঙ্গে বৈঠকে যোগ দেয়া কনজার্ভেটিভ দলের ওই এমপিরা চাইছেন প্রধানমন্ত্রী ডাউনিং স্ট্রিট থেকে বিদায় নেয়ার জন্য একটি তারিখ ঘোষণা করবেন।

বিবিসি লিখেছে, এরই মধ্যে তিন দফা ব্রেক্সিট পকিল্পনায় ভয়াবহভাবে প্রত্যাখ্যাত হয়েছেন তেরেসা মে। জুনের ভোটেও যদি তিনি পরাজিত হন তাহলে তাকে পদত্যাগ করতে হবে। এরই মধ্যে সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন বলে দিয়েছেন, তেরেসা মে পদ ছাড়লে তিনি নির্বাচন করবেন। গত বছরের শেষের দিকে কনজার্ভেটিভ দলের এমপিদের আনা আস্থা ভোটে রক্ষা পান তেরেসা মে। দলীয় নীতিমালা বলে, তিনি ডিসেম্বরের আগে আর আনুষ্ঠানিক কোনো পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারবেন না।

এত সব সত্ত্বে এই গ্রীষ্মে ডাউনিং স্ট্রিট ছাড়ার দাবি জোরালো হতে থাকে। প্রচ- চাপে পড়েন তেরেসা মে। তার সঙ্গে ব্রেক্সিট নিয়ে এক অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়। ইংল্যান্ডে স্থানীয় নির্বাচনে তার কনজার্ভেটিভ দল খারাপ ফল করে। বিবিসির পলিটিক্যাল এডিটর লরা কুয়েন্সবার্গ বলেছে, সিনিয়র সূত্রগুলো তাকে বলেছেন, যদি ব্রেক্সিট পরিকল্পনা চতুর্থবারের মতো এমপিরা প্রত্যাখান করেন তাহলে প্রধানমন্ত্রীর পদে থাকা অকল্পনীয় হয়ে দাঁড়াবে তেরেসা মের জন্য।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত