দুধের উপরে পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন দেয়ার নির্দেশ হাইকোর্টের

হাইকোর্ট বলেছেন, কোন কোন কোম্পানির দুধে স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর উপাদান রয়েছে সেটা আমাদেরকে জানতে হবে। কারণ যদি সেটা আমরা না জানতে পারি তাহলে জনগণকে সচেতন করা যাবে না। জনগণের অধিকার রয়েছে- তার স্বাস্থ্যর জন্য কোনটি ভাল সেটা বেছে নেয়ার।

বুধবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ মন্তব্য করেন।

এর আগে আদালতে বিএসটিআইএর আইনজীবী এম আর হাসান দুধ নিয়ে শাহলিনা ফেরদৌসের করা গবেষণা রিপোর্ট নিয়েও প্রশ্ন তোলেন।

তিনি বলেন, এই গবেষণা রিপোর্টে বলা হয়েছে- দুধের ৯৬টি স্যাম্পলের মধ্যে ৯৩টিতে ক্ষতিকর উপাদান পাওয়া গেছে। যা নিয়ে সারাদেশে হইচই পড়ে যায়। কিন্তু এই রিপোর্ট কতটা সঠিক এবং ল্যাবরেটরির নিয়ম কানুন মেনে স্যাম্পলগুলো সংগহ করা হয়েছিল কিনা সেটা জানা দরকার।

এর পরে আদালত আগামী ২১ মে শাহলিনা ফেরদৌসকে আদালতে হাজির হয়ে তার গবেষণার বিষয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে। একই সঙ্গে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষকে দুধের উপরে পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত