যেভাবে ঠান্ডা পানি পানে হতে পারে মারাত্মক বিপদ!

কাজের প্রয়োজনে বেশির ভাগ মানুষকে বাইরে বের হতেই হয়। আর বাইরে থেকে গরমে ঘেমে বিদ্ধস্ত হয়ে বাড়ি ফিরে ফ্রিজ খুলে ঠান্ডা পানি খাওয়ার পর তবেই কিছুটা স্বস্তি মেলে।

তবে জানেন কি, প্রচণ্ড গরমে বাইরে থেকে বিদ্ধস্ত হয়ে ঘরে ঢুকেই এই ভাবে ঠান্ডা পানি খাওয়ার অভ্যাস মারাত্মক বিপদ ডেকে আনতে পারে? এর ফলে মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে শরীরের। আসুন আমাদের আজকের এই প্রতিবেদনে এ বিষয়ে সবিস্তারে জেনে নেওয়া যাক-

১) বিশেষজ্ঞদের মতে, খাওয়ার পরে ঠান্ডা পানি খাওয়ার অভ্যাস অত্যন্ত অস্বাস্থ্যকর। কারণ এর ফলে শ্বাসনালীতে অতিরিক্ত পরিমাণে শ্লেষ্মার আস্তরণ তৈরি হয়, যা থেকে সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই বেড়ে যায়।
২) মাত্রাতিরিক্ত ঠান্ডা পানি খাওয়ার ফলে রক্তনালী সঙ্কুচিত হয়ে পড়ে। শুধু তাই নয়, অতিরিক্ত ঠান্ডা পানি খাওয়ার ফলে আমাদের স্বাভাবিক পরিপাক ক্রিয়া বাধাপ্রাপ্ত হয়। ফলে হজমের মারাত্মক সমস্যা হতে পারে।

৩) শরীরচর্চার পর ঠান্ডা পানি একদমই খাবেন না। কারণ ঘণ্টা খানেক ওয়ার্কআউটের পর শরীরের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে অনেকটাই বেড়ে যায়। এই সময় ঠান্ডা পানি খেলে শরীরের তাপমাত্রার সঙ্গে বাইরের পরিবেশের তাপমাত্রার সামঞ্জস্য বিঘ্নিত হয়। ফলে হজমের নানা সমস্যা দেখা দিতে পারে।

৪) দন্ত চিকিৎসক ও বিশেষজ্ঞদের মতে, অতিরিক্ত ঠান্ডা পানি খেলে তার ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে দাঁতের ভেগাস স্নায়ুর উপর। এই ভেগাস স্নায়ু আমাদের স্নায়ুতন্ত্রের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি অংশ। অতিরিক্ত ঠান্ডা পানি খেলে ভেগাস স্নায়ু উদ্দীপিত হয়ে ওঠে। ফলে আমাদের হৃদযন্ত্রের গতি অনেকটাই কমে যেতে পারে।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত