নূর উদ্দিনকে ছদ্মবেশে যেভাবে গ্রেফতার করা হয়

ফেনীর সোনাগাজীতে পরীক্ষাকেন্দ্রে মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে আগুনে পুড়িয়ে মারার ঘটনায় অভিযুক্ত অধ্যক্ষ সিরাজ উদদৌলার মুক্তি দাবিতে আন্দোলন করা এবং হত্যা মামলার আসামি নূর উদ্দিনকে ময়মনসিংহের ভালুকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

শুক্রবার (১২ এপ্রিল) বেলা ১১টার দিকে ভালুকার সিডস্টোর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে ময়মনসিংহ পিবিআই।

এদিন ছদ্মবেশে নূর উদ্দিনকে গ্রেফতার করেন বাংলাদেশ পুলিশের চৌকস অফিসার মেহেদী হাসান। জানা গেছে, নূর উদ্দিন ভালুকায় অবস্থান করছেন এরকম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে লুঙ্গি-গেঞ্জি পরে সে এলাকায় যান মেহেদী হাসানসহ পিবিআইয়ের কয়েকজন সদস্য। সেখান থেকে গ্রেফতার করা হয় তাকে।

নূর হোসেনকে ছদ্মবেশে গ্রেফতারের একটি ছবি নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে বেশ আলোচনা হচ্ছে। এদিকে নুসরাত জাহান রাফিকে পরিকল্পনা করে আগুন দিয়ে হত্যার কথা স্বীকার করেছে আসামি নূর উদ্দিন।

পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে দেয়া স্বীকারোক্তিতে সে জানিয়েছে, আলেম সমাজকে অপদস্থ করার শাস্তি হিসেবে নুসরাতকে পুড়িয়ে মারার সিদ্ধান্ত নেয় প্রধান আসামি সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলার ঘনিষ্ঠ সহযোগী নূর উদ্দিনসহ অন্যরা।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত