এইচআইভির দোহাই দিয়ে ধর্ষণ থেকে রক্ষা

এইডস সৃষ্টিকারী ভাইরাস এইচআইভিতে আক্রান্তÑ এ কথা বলে ধর্ষণের হাত থেকে রক্ষা পেয়েছেন ভারতের আওরঙ্গাবাদের এক নারী। সেখানকার রাজনগরে ২৯ বছর বয়সী এক বিধবাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে হত্যা মামলায় অভিযুক্ত কিশোর বিলাস আভহান (২২)। এ সময় ওই নারী দাবি করেন, তাকে ধর্ষণ করলে তারও এইডস হবে। ফলে রক্ষা পান তিনি। এ ঘটনার কয়েকদিন পরে কিশোর বিলাসকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ খবর দিয়েছে অনলাইন টাইমস অব ইন্ডিয়া।

নিজের পিতাকে হত্যার অভিযোগ আছে কিশোর বিলাসের বিরুদ্ধে। এ জন্য তাকে সম্প্রতি গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।

জামিনে বেরিয়ে এসে ২৫ শে মার্চ রাতে সে ওই নারীকে ধর্ষণে চেষ্টা করে। ওই সময় ওই নারী তার সাত বছর বয়সী মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে শহরে গিয়েছিলেন কিছু কেনাকাটা করতে। কিন্তু বাড়ি ফেরার পথে দেখতে পান তার কাছে মাত্র ১০ রুপি আছে। এ সময় তিনি মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে একটি অটোরিক্সা শেয়ার করার চেষ্টা করেন। অপেক্ষা করতে থাকেন শাহনুরমিয়া দরগার বাইরে।

পাশ দিয়ে মোটরসাইকেলে যাচ্ছিল কিশোর বিলাস। সে ওই নারী ও তার মেয়েকে বাড়ি পৌঁছে দেয়ার প্রস্তাব করে। রাজনগরে যাওয়ার পরিবর্তে সে অন্য রাস্তায় মোটরসাইকেল চালাতে থাকে। আপত্তি করলে সে ওই নারীকে অস্ত্রের ভয় দেখায়। ধর্ষণে উদ্যত হয়। এ সময় বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দেন ওই নারী। তিনি বলেন, তার দেহে এইচআইভি আছে। এর ফলে তাকে ত্যাগ করে চলে যায় কিশোর বিলাস। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। কিন্তু পলাতক রয়েছে সে।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত