যে খাবারগুলো সবসময় আলাদা খাবেন

শরীর সুস্থ রাখতে খাবার আবশ্যক৷ কিন্তু কিছু সাধারণজ্ঞানের অভাবে খাওয়ার ক্ষেত্রে আমরা বেশ কিছু ভুল করে থাকি৷ এর ফলে শরীর অসুস্থ হয়ে পড়ে৷ কিন্তু কী কারণে সেটা হচ্ছে, তা অজানাই থেকে যায়৷ সেই ভুলগুলোই থাকছে এই ছবিঘরে৷

খাবার ও পানি
আয়ুর্বেদ ও চিকিৎসা বিজ্ঞান বলছে, খাওয়ার ৪৫ মিনিট আগে অথবা ৪৫ মিনিট পরে পানি পান করা উচিত৷ অর্থাৎ খাওয়ার সাথে বা খেতে খেতে কখনই পানি পান করা উচিত নয়৷ এমনকি খাওয়ার সাথে কোনো পানীয়ই পান করা উচিত নয়, যেমন, চা, কফি, জুস বা কোমল পানীয়৷ এতে হজম প্রক্রিয়া ব্যাহত হয়৷

অ্যান্টিবায়োটিক এবং দুগ্ধজাত পণ্য
অ্যান্টিবায়োটিক নেওয়ার তিন ঘণ্টা আগে এবং তিন ঘণ্টা পরে দুগ্ধজাত পণ্য, যেমন দই, পনির, দুধ এগুলো খাওয়া উচিত নয়৷ বিশেজ্ঞদের মতে, দুগ্ধজাত পণ্যে যেসব ব্যকটিরিয়া থাকে তারা অ্যান্টিবায়োটিকের ক্ষমতা হ্রাস করে ফেলে৷

দুধের সাথে টক ফল
দুধের মধ্যে যে ল্যাকটোজ প্রোটিন থাকে, সেটা পাচনের জন্য শরীরকে অনেক কষ্ট করতে হয়৷ তাই দুধ খাওয়ার আগে বা পরে টক জাতীয় ফল যেমন, লেবু, তেঁতুল, আনারস – এ সব খেলে পেটের মধ্যে দুধ ফেটে যায়৷ এর ফলে গ্যাস, অ্যাসিডিটি/অম্বল এমনকি পেট ব্যথাও হতে পারে৷

কার্বোনেটেড পানীয় আর পুদিনা
পেপসি, কোক, ফান্টা বা যে কোনো কার্বোনেটেড পানীয়তে পুদিনা পাতা দেয়া উচিত নয়৷ এ দুটোর মিশ্রণে বিষক্রিয়া হতে পারে৷ এমনকি পেটে সায়নাইড সৃষ্টির আশঙ্কাও থাকে৷

কাশির ওষুধ আর লেবু
লেবুর রস – তা সে যে লেবুরই হোক না কেন, তাতে রয়েছে ভিটামিন সি৷ তাই সর্দি-কাশি হলে লেবু খাওয়া উপকারী৷ কিন্তু লেবু এবং কাশির ওষুধ – এ দু’টো একসঙ্গে খেলে বিপদ৷ কাশির ওষুধের সাথে লেবুর রসের যে রাসায়নিক বিক্রিয়া হয়, তাতে ওষুধের গুণাগুণ কমে যায়৷ তাই দু’টো একসাথে খেয়ে কোনো লাভ নেই৷

দই আর ফল
আয়ুর্বেদ বলছে, দইয়ের সাথে টক ফল খাওয়া উচিত না৷ অনেকেই অবশ্য দইয়ের মধ্যে ফল দিয়ে খান৷ দইয়ের সঙ্গে মিষ্টি ফল খাওয়া ভালো, কিন্তু টক ফল খেলে হজমে গণ্ডগোল, অ্যালার্জি, এমনকি সাইনাসের সমস্যাও হতে পারে৷

মদ্যপানের সঙ্গে ওষুধ
মদ্যপানের সঙ্গে সঙ্গে শরীরে রক্তপ্রবাহ বেড়ে যায়৷ তাই ওষুধ গ্রহণের সময় মদ্যপান থেকে বিরত থাকারই পরামর্শ দিয়ে থাকেন ডাক্তাররা৷

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত