দুর্বৃত্তরা নুসরাতের গায়ে আগুন দেয় বোরকা পরে

ফেনীর সোনাগাজীতে আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাত জাহান রাফির গায়ে পেট্রল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়া চার দুর্বৃত্তই বোরকা পরা ছিল বলে জানিয়েছেন তার ভাই মাহমুদুল হাসান নোমান। শনিবার সন্ধ্যায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের সামনে এ কথা বলেন। তিনি বলেন, ঘটনার পর তার বোন তাদের এ কথা জানিয়েছেন।

নুসরাতের বরাত দিয়ে নোমান বলেন, ঘটনার পর রাফি পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কিছু কথা বলে। পরীক্ষার কেন্দ্রে যাওয়ার পর একজন পরীক্ষার্থী নুসরাতকে বলেন, তার (রাফির) এক বান্ধবীকে কারা যেন ছাদে মারধর করছে। এটা শুনে নুসরাত ছাদে যান। সেখানেই এই ঘটনা ঘটে।

নোমান বলেন, বোনের কথা শুনে মনে হয়েছে, বোরকা পরা চারজন মিলে নুসরাত জাহান রাফির গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। আর যে রাফিকে ছাদে যেতে প্রলুব্ধ করেছে, সেও এদের সঙ্গে যুক্ত। তবে এদের পরিচয় জানা যায়নি। এরা নারীর বেশ ধরে পুরুষও হতে পারে বলে ধারণা করছেন নুসরাতের ভাই মাহমুদুল হাসান নোমান।

তিনি বলেন, চারজন যারা নুসরাতের শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন দিয়েছে, তাদের মধ্যে একজন নারীকণ্ঠে কথা বলেছেন। সে মেয়ে বলে ধারণা করছি। বাকিরা কথা বলেনি। তৃতীয় তলার ছাদে নুসরাত যাওয়ার পর নারীকণ্ঠে একজন ২৭ মার্চের ঘটনার জেরে মামলা তুলে নিতে হুমকি দেয়। রাজি না হওয়ার কারণে আগুন দিয়ে পালিয়ে যায় চারজন।

দগ্ধ ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি (১৮) সোনাগাজী পৌরসভার চরচান্দিয়া গ্রামের একেএম মুসার মেয়ে। রাফি স্থানীয় একটি মাদ্রাসা থেকে আলিম পরীক্ষা দিচ্ছিল। দিন সকাল পৌনে ১০টার দিকে পরীক্ষা দিতে কেন্দ্রে প্রবেশের আগে নুসরাত জাহানকে তার বন্ধুরা ডেকে নেয়। এ সময় নুসরাতকে তার বন্ধুরা জানায়, তার (নুসরাত) এক বান্ধবীকে মাদ্রাসা ছাদে পেটানো হচ্ছে। নুসরাত পরীক্ষা কেন্দ্রের ছাদে গেলে কয়েকজন দুর্বৃত্ত তার শরীরে পেট্রল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়।

পরে তাকে উদ্ধার করে ফেনী সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়। বর্তমানে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে এইচডিইউতে চিকিৎসাধীন আছেন নুসরাত। বার্ন ইউনিটের আবাসিক চিকিৎসক পার্থ শংকর পাল বলেন, রাফির মুখমণ্ডলের ক্ষতি হয়নি। তবে তার শরীরের ৭৫ শতাংশ পুড়ে গেছে। শ্বাসনালি পুড়ে না গেলেও রাফির অবস্থা সংকটাপন্ন বলে জানান তিনি।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত