নোয়াখালীতে আগুনে পুড়ল ২২ দোকান

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলায় আগুনে ২২টি দোকান পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এতে কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করছেন ক্ষতিগ্রস্তরা। শনিবার ভোরে মহেষগঞ্জ বাজারে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, ভোর তিনটার দিকে বাজারে হঠাৎ আগুন জ্বলতে দেখে স্থানীয়রা। আগুন নিয়ন্ত্রণে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলেও দ্রুত আগুন পুরো বাজারে ছড়িয়ে পড়ায় তা নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়নি।

খবর পেয়ে চৌমুহনী, মাইজদী ও সোনাইমুড়ী থেকে ফায়ার সার্ভিসের ছয়টি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। কিন্তু তার আগেই আগুনে বাজারে থাকা চালের আড়ৎ, মুদি দোকান, ফার্মেসি, হোটেলসহ অন্তত ২২টি দোকান সম্পূর্ণ পুড়ে যায়। এতে দোকানগুলোতে থাকা মূল্যবান মালামাল ও নগদ টাকা পুড়ে কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি ক্ষতিগ্রস্তদের।

ফায়ার সার্ভিসের চৌমুহনী স্টেশনের ওয়ার হাউজ ইন্সপেক্টর মাহবুব এ এলাহি জানান, আগুন লাগার পর চৌমুহনী স্টেশনের দুটি, মাইজদী স্টেশনের তিনটি ও সোনাইমুড়ী স্টেশনের একটি ইউনিট গিয়ে প্রায় তিন ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

কিভাবে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে সে ব্যাপারে পরিষ্কার জানাতে পারেননি তিনি। তবে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে আগুন লাগতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। তদন্ত ছাড়া ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ বলা যাবে না বলে জানান তিনি।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত