পান্ডিয়া-রাহুলের বিরুদ্ধে সমন জারি

বিপদ বাড়লো হার্দিক পান্ডিয়া ও লোকেশ রাহুলের। তাদের বিরুদ্ধে সমন জারি করেছেন ভারতীয় ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বোর্ড অব কনট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) ন্যায়পাল ডিকে জেইন। সমনে বলা হয়েছে আগামী ৯ ও ১০ এপ্রিল মুম্বাইয়ে তাদেরকে শুনানির জন্য হাজিরা দিতে হবে।

‘কফি উইথ করণ’ নামের টিভি শোতে নারীদের সম্পর্কে বিতর্কিত মন্তব্য করেছিলেন এই দুই ভারতীয় ক্রিকেটার লোকেশ রাহুল ও হার্দিক পান্ডে। অনুষ্ঠানটি গেল নয় জানুয়ারি সম্প্রচার করা হয়। এর দু’দিন বাদেই সাময়িকভাবে তাদের ভারতীয় ক্রিকেট দল থেকে নিষিদ্ধও করা হয়েছিল। অস্ট্রেলিয়া থেকে তাদের দেশে ফেরত পাঠানো হয়। এরপর ২৪ জানুয়ারি নিষেধাজ্ঞা উঠে গেলেও তদন্ত চালু রাখে সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স (সিওএ)।

এরই অংশ হিসেবে এখন তাদের শুনানিতে অংশ নিতে হবে। চলমান ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) পান্ডিয়া খেলছেন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে। আর লোকেশ রাহুলের দল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। শুনানির সময় এই দু’টি ফ্র্যাঞ্চাইজি’র জন্য একটু দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। পান্ডিয়ার শুনানি ৯ এপ্রিল। ১০ এপ্রিল রাহুলের শুনানি। ১০ এপ্রিল, মুম্বাইয়ের মাটিতে স্বাগতিকদের মোকাবেলা করবে পাঞ্জাব। ফলে ম্যাচটিতে পান্ডিয়ার খেলা মোটামুটি নিশ্চিত হলেও রাহুলের খেলা নিয়ে তাই আছে সংশয়।

বিচারক জেইন বলেন, ‘আমি তাদেরকে নোটিশ পাঠিয়েছি। এবার তারা আসবে কি আসবে না, এটা পুরোপুরি তাদের ইচ্ছা। এটা বিচারের স্বাভাবিক একটা প্রক্রিয়া। অভিযুক্ত যে কাউকেই নিজের আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেওয়া হয়। ওদের ক্ষেত্রেও তাই হচ্ছে।’

জেইন আরো জানান, সাজা নির্ধারণের হয়ে বিসিসিআইকে কোনো সময়সীমা বেঁধে দেওয়া হবে না। কারণ, দু’পক্ষই আসন্ন ওয়ানডে বিশ্বকাপের কথা মাথায় রাখছে। বিশ্বকাপের জন্য আগামী ২৫ এপ্রিল নাগাদ দল ঘোষণা করবে ভারত। আর টুর্নামেন্ট শুরু হবে ৩০ মে।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত