মসজিদেও কি আমরা নিরাপদ নই : শোয়েবের কড়া বার্তা

পাকিস্তানের সাবেক স্পিডস্টার শোয়েক আখতার এক টুইটে লিখেছেন, ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার ছবি দেখলাম। আমি স্তম্ভিত ও শংকিত। আমরা কি এখন প্রার্থনাস্থলেও নিরাপদ নই? এমন বর্বর হামলার তীব্র প্রতিবাদ জানাই। তবে আমি আনন্দিত যে,বাংলাদেশের খেলোয়াড়েরা নিরাপদ আছেন। নিউজিল্যান্ডে ক্রাইস্টচার্চের মসজিদ আল নূরে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলায় ৪১ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন অসংখ্য। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশংকা করা হচ্ছে।

তবে এই হামলা থেকে অল্পের জন্য বেঁচে গেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা। এতে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন পাকিস্তানের এই কিংবদন্তী তারকা। হামলা হওয়া সেই মসজিদেই নামাজ পড়তে যাচ্ছিলেন তামিম-মিরাজরা। প্রবেশের মুহূর্তে স্থানীয় এক পথচারী তাদের মসজিদে ঢুকতে নিষেধ করেন। বলেন এখানে সন্ত্রাসী হামলা হয়েছে। এতে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন খেলোয়াড়েরা।

পরে দৌড়ে টিম বাসের মধ্যে ঢুকে যান এবং মেঝেতে শুয়ে পড়েন। খানিক পরই ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন। তারা এখন হ্যাগলি ওভাল স্টেডিয়ামে অবস্থান করছেন। তবে খুব কাছ থেকে এমন মারাত্মক ঘটনার সাক্ষী হয়ে ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে পড়েছেন ক্রিকেটাররা। দ্রুত ফিরে আসতে চাচ্ছেন। ইতিমধ্যে তাদের ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ নিয়েছে বিসিবি।

পাঠকের মতামত