সুন্দরবনের ৪০ একর বন উধাও, ধরা পড়ল স্যাটেলাইটে

শুঁটকি পল্লীর আয়তন বাড়াতে চুরি করা হয়েছে সুন্দরবনের প্রায় ৪০ একর বনভূমি। সুন্দরবনের নাড়িকেল বাড়িয়া এলাকার বাইরের দিকে কিছু গাছ রেখে ভেতর থেকে উজাড় করা হয়েছে বন। আর এ নিয়ে কোনো কথা বলতে চাননি শুঁটকি পল্লীর মালিক এবং বন বিভাগের কর্মকর্তারা।

বাইরে থেকে বনের সীমানা স্বাভাবিক। কিন্তু স্যাটেলাইটের ছবি বলছে বছর দশেক আগেও এ শুঁটকি পল্লী ছিল চরে। এরপর ভাঙনের কারণে পল্লীটি সরিয়ে নেয়া হয় বনের ভিতর। পরে সে বনের প্রায় ৪০ একর জুড়ে বাড়ানো হয়েছে শুঁটকি পল্লীর আয়তন। এভাবেই বছর বছর গাছ কাটা এখনো অব্যাহত রয়েছে।

যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছেন সুন্দরবনের নাড়িকেলবাড়িয়ার শুঁটকি পল্লীটির পরিচালক। তিনি বলেন, এখানে কোনো গাছ কাটা হয়নি। আগেও এটা এমনই ছিল। তবে শুঁটকি পল্লীটির শ্রমিকরা ঘটনা সত্য বলে স্বীকার করেছেন। তারা জানান, জঙ্গলে বাঘের হাত থেকে বাঁচতে চারপাশে ঘেরাও দেয়া হয়েছে। শুয়োর ঢুকে। শুয়োর এসে তাদের কামড়েছে বলেও জানান তারা। এ বিষয়ে বন বিভাগের প্রধান বন সংরক্ষণ কর্মকর্তা কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত