হাসপাতালের বারান্দায় পাগলীর সন্তান প্রসব

প্রকাশিত: অক্টো ২, ২০২০ / ০৩:৪০অপরাহ্ণ
হাসপাতালের বারান্দায় পাগলীর সন্তান প্রসব

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মানসিক ভারসাম্যহীন (পাগল) এক নারী হাসপাতালে সন্তান প্রসব করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার দিনগত রাত ৮টার দিকে লিমা (২৬) নামের ওই নারী ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের গাইনী বিভাগের বারান্দায় একটি ফুটফুটে ছেলে সন্তান প্রসব করেন।

আখাউড়া রেলওয়ে থেকে উদ্ধার হওয়া লিমা মানসিকভাবে ভারসাম্যহীন। জন্মগতভাবে তার বাম হাতে সমস্যা রয়েছে।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, লিমা আখাউড়া রেলওয়ে স্টেশনের থানার পাশের একটি বস্তিতে থাকেন। রেলওয়ে প্লাটফর্মে সে ভিক্ষা করতেন। তার স্বামী জাহিদ তার খোঁজখবর নিতেন না বলে জানা যায়। তার স্বামী জাহিদ স্থানীয় খরমপুর মাজারে থাকেন।

গাইনী বিভাগের সিনিয়র নার্স ববিতা রানীর সূত্রে জানা যায়, বিকেলে লিমা প্রসব ব্যথা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল। রাতে ওই নারীকে গাইনী বিভাগের বারান্দায় প্রসব করা হয়। ওই পাগলিনী মহিলা ফুটফুটে ছেলে সন্তান জন্ম দেন।

হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. শওকত হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সাধারণভাবেই সন্তান প্রসব করেছেন (নরমাল ডেলিভারি)। গাইনী কনসালটেন্ট ও শিশু কনসালট্যান্টের পরামর্শে মাধ্যমে প্রসূতি ও নবজাতকের যথাযথ চিকিৎসাসেবা প্রদান করছি। বর্তমানে প্রসূতি মা ও নবজাতক সুস্থ আছে।

সদর মডেল থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি) আব্দুর রহিম বলেন, ওই মানসিক ভারসাম্যহীন মহিলা একটি ফুটফুটে ছেলে সন্তান জন্ম দিয়েছে। তার চিকিৎসা পাওয়ার অধিকার আছে। তার প্রকৃত ঠিকানা অনুসন্ধানের প্রক্রিয়া চলছে। না পাওয়া গেলে তার সুস্থতাপরবর্তী সমাজসেবা অধিদপ্তরের আশ্রয়ণের সহায়তা চাওয়া হবে।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন