জমা রাখার নামে ভিক্ষার টাকা আ’ত্মসাৎ

প্রকাশিত: সেপ্টে ২১, ২০২০ / ০৭:৪৭অপরাহ্ণ
জমা রাখার নামে ভিক্ষার টাকা আ’ত্মসাৎ

বাড়ি তো নয় পাখির বাসা ভেন্না পাতার ছানি, একটুখানি বৃষ্টি হলেই গড়িয়ে পড়ে পানি। একটুখানি হাওয়া দিলেই ঘর নড়বড় করে, তারি তলে আসমানীরা থাকে বছর ভরে- বাংলা সাহিত্যে পল্লীকবি জসীমউদদীনের অনবদ্য সৃষ্টি ‘আসমানী’ কবিতা।

ওই কবিতার রসুলপুরের আসমানীর ভেন্না পাতার ছানি দিয়ে একটি নড়বড় ঘর থাকলেও হাটহাজারী উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের মদনহাট এলাকার মৃ’ত মুন্সি মিয়ার স্ত্রী ষাটোর্ধ্ব লায়লা বেগমের তাও নেই।

প্রায় ২০ বছর আগে তার স্বামীর মৃ’ত্যু হয়েছে। এরপর তিনি একমাত্র কন্যাকে নিয়ে জীবন-জীবিকার তাগিদে বেছে নেয় ভিক্ষাবৃত্তি পেশা। এরই মধ্যে ধার-কর্জ করে তার কন্যাকে এক অটোরিক্শাচালকের সাথে বিয়ে দেন।

কন্যাকে পাত্রস্থ করে নিজেকে বাঁচিয়ে রাখতে ভিক্ষাবৃত্তি পেশাটি চালিয়ে যাচ্ছেন। বাস্তুহারা লায়লা বর্তমানে উপজেলার ফতেয়াবাদ রেলস্টেশনের পশ্চিমে চট্টগ্রাম সিটি কপোরেশনের ১নং ওয়ার্ডের সন্দ্বীপ কলোনিতে বসবাস করেন।

জানা গেছে, লায়লা তার প্রতিদিনের ভিক্ষাবৃত্তির ৩-৪শ’ ও প্রতি মাসের বয়স্ক ভাতার টাকা ১ হাজার করে তার আপন বোন রাজু বেগমের কাছে সরল বিশ্বাসে জমা রাখতেন।

ভিক্ষাবৃত্তির টাকা ছাড়াও বিভিন্ন সময় মানুষের কাছ থেকে পাওয়া জাকাত-ফিতরার টাকাসহ এভাবে ৫ বছরে পাঁচ লাখ টাকা জমিয়েছেন। উদ্দেশ্য ছিল এসব জমানো টাকা দিয়ে তিনি একটি মাথা গোঁজার ঠাঁই তথা একটি বসতভিটা ক্রয় করবেন।

গত বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে লায়লা তার বোনের মেয়ের কাছে টাকা চাইতে গেলে তিনি বে’ধ’ড়’ক মা’র’ধরের শি’কা’র হন। এ সময় তাকে (লায়লা) তার বোনের ছেলেরা (জাহেদ, রাশেদ ও রায়হান) লোহার রড ও লা’ঠি দিয়ে মাথায় আ’ঘা’ত করে ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে পি’টি’য়ে জ’খ’ম করে। অ’ভি’যুক্ত রাজু বেগম একই উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের মদনহাট এলাকার মো. জাফরের স্ত্রী।

ওই সময় স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থলে এসে তাকে উ’দ্ধা’র করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।

এ ঘটনায় গত রোববার রাতে বৃদ্ধা লায়লা বেগম বাদী হয়ে থানায় একটি অ’ভি’যোগ দায়ের করার বিষয়টি নিশ্চিত করেন হাটহাজারী মডেল থানায় কর্তব্যরত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবুল বাশার। তিনি জানান, এই অ’ভি’যোগটি তদন্তের জন্য থানার উপ-পরিদর্শক মশিউর রহমানকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন