টিকটক বন্ধ ভারতে, সমর্থন জানালো কোহলি

প্রকাশিত: জুলা ৪, ২০২০ / ০৮:২৮অপরাহ্ণ
টিকটক বন্ধ ভারতে, সমর্থন জানালো কোহলি

এই সময়ের তুমুল জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টিকটক। স্বল্পদৈর্ঘ্যের ভিডিও তৈরির এই অ্যাপটির উৎপত্তি চীনে হলেও অল্প সময়েই ভারতের বাজার বেশ ভালোভাবেই দখলে নেয় এটি। টিকটক ব্যবহারকারীদের বিশাল একটি অংশ ভারতের হলেও হুট করেই এটি সেখানে নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

এই সপ্তাহের শুরুতে, জাতীয় নিরাপত্তার জন্য উ’দ্বে’গের কারণ হিসেবে উল্লেখ করে টিকটক, উইচ্যাট ও ইউসি ব্রাউজারসহ প্রায় ৫৯টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করে ভারত সরকার। এ নিয়ে আলোচনা-সমালোচনার মধ্যেই এমন সিদ্ধান্তের প্রতি সমর্থন জানালেন ‘ইয়ারিয়ান’খ্যাত বলিউড অভিনেতা হিমাংশ কোহলি।

ভারতের বিনোদনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বলিউড বাবলের প্রতিবেদনে জানা যায়, চলমান ল’ক’ডাউনের মধ্যে হিমাংশ কোহলি তাঁর কো’য়া’রেন্টিন সময় সম্পর্কে কথা বলেন সম্প্রতি। ভিডিও শেয়ারিং সাইট ইউটিউবে প্রকাশ্যে আসা ভিডিওতে টিকটক ছাড়াও আরো বেশ কিছু বিষয়ে কথা বলেন তিনি।

একটি প্রতিবেদন অনুসারে, বিশ্বে প্রায় ১২০ মিলিয়ন ব্যবহারকারী ছিল টিকটকের, এর মধ্যে বলিউড তারকা শিল্পা শেঠি, রিতেশ দেশমুখ ও জেনেলিয়া ডি সুজার মতো তারকারাও রয়েছেন। তবে ভারতে টিকটক নিষিদ্ধ হওয়ায় ব্যবহারকারীর সংখ্যায় বড় ধস নেমেছে।

নিষেধাজ্ঞার পক্ষে বক্তব্য রেখে হিমাংশ কোহলি বলেন, ‘আমি আমার দেশের পক্ষে প্রতিটি সিদ্ধান্তকে জোরালো সমর্থন করি। এই অ্যাপ্লিকেশনগুলো নি’ষি’দ্ধ করা যদি উপকারী হয় ও আমি যদি এতে ভূমিকা রাখতে পারি, তাহলে প্রথম ব্যক্তি হিসেবে আমি তা করব।

দু-দেশের মধ্যে যে উ’ত্তে’জনা রয়েছে, সে সম্পর্কে আমরা সবাই জানি এবং সেখানে অনেক সৈন্য প্রাণ হারাচ্ছেন। যদি কোনোভাবে এই অ্যাপ্লিকেশনগুলো নি’ষি’দ্ধকরণের মাধ্যমে একটি শক্ত বার্তা দেওয়া হয়, তাহলে আবার এটিকে সমর্থন করব।’

দিল্লির ছেলে হিমাংশ কোহলি চ্যানেল ‘ভি’র ‘হামসে হ্যায় লাইফ’-এর মাধ্যমে অভিনয়জগতে পদার্পণ করেন। ২০১৪ সালে ‘ইয়ারিয়ান’ ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমে চলচ্চিত্রে আত্মপ্রকাশের পরে তিনি ‘জিনা ইসি কা নাম হ্যায়’, ‘সুইটি ওয়েডস এনআরআই’ এবং ‘দিল জো না কেহ সাকা’ সিনেমাতে অংশগ্রহণ করেন। শিগগিরই তাঁকে ‘বুন্ডি রাইতা’ ছবিতে দেখা যাবে।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন