মালয়েশিয়া থেকে দেশে ফিরতে লাগবে এই সনদ

প্রকাশিত: মে ৭, ২০২০ / ১১:৪৭পূর্বাহ্ণ
মালয়েশিয়া থেকে দেশে ফিরতে লাগবে এই সনদ

মালয়েশিয়া থেকে দেশে ফিরতে লাগবে কোভিড-১৯ পরীক্ষার সনদ। প্রাণঘাতী করোনার প্রাদুর্ভাবের কারণে চলমান মুভমেন্ট কন্ট্রোলে মালয়েশিয়ায় পর্যটন ভিসায় আটকেপড়া বাংলাদেশিদের দেশে ফিরিয়ে আনতে উদ্যেগ গ্রহণ করেছে মালয়েশিয়ার বাংলাদেশ হাইকমিশন। আগামী ১৩ মে দেশটিতে আটকেপড়া বাংলাদেশিদের দেশে ফেরাতে বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা করেছে হাইকমিশন।

হাইকমিশনের ফেসবুক পেজে প্রকাশিত এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, হাইকমিশন আগামী ১৩ মে (সম্ভাব্য) মালিন্দো এয়ারের একটি চার্টার্ড ফ্লাইটের ব্যবস্থা করেছে। মালয়েশিয়ায় আটকেপড়াদের মধ্যে যারা দেশে ফিরতে ইতোমধ্যে ফ্লাইটের টিকিটের মূল্য পরিশোধ করেছেন তাদের নির্ধারিত হাসপাতাল থেকে ১০ মে’র মধ্যে নিজ উদ্যোগে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত মেডিকেল সার্টিফিকেট গ্রহণ করতে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, হাসপাতালে পরীক্ষার সময় বাংলাদেশ হাইকমিশনের ব্যবস্থাপনায় দেশে ফিরে যাচ্ছেন এবং ১১ মে মেডিকেল সার্টিফিকেট পেতে হবে এমন তথ্য অবশ্যই হাসপাতালকে অবহিত করতে হবে।

জানা গেছে, যাত্রীদের টিকিট ও মেডিকেলের সমন্বয়কারী হিসেবে কাজ করছেন বাংলাদেশ-মালয়েশিয়া চেম্বার্স অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সাবেক প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ আলমগীর জলিল।

কোভিড-১৯ পরীক্ষার জন্য হাইকমিশন কর্তৃক নির্ধারিত হাসপাতালগুলো হলো-

১. গ্লেন অ্যাঙ্গেলস হসপিটাল, জালান আমপাং, কুয়ালালামপুর।

২. কেপিজে দামানসারা স্পেশালাইজড হসপিটাল, দামানসারা, উটামা, ৪৭৪০০ পেটালিং জায়া, সেলাঙ্গর।

৩. কেপিজে আমপাং পুতেরি স্পেশালাইজড হসপিটাল, আমপাং, সেলাঙ্গর।

৪. কেপিজে তাওয়াক্কাল কেএল স্পেশালাইজড হসপিটাল, ১, জালান পাহাং বারাত, পেকেলিলিং, ৫৩০০০ কুয়ালালামপুর, উইলিয়াহ পেরসেকুতুয়ান, কুয়ালালামপুর।

৫. সানওয়ে মেডিকেল সেন্টার, জালান লাগুন সেলাতান, বন্দর সানওয়ে, ৪৭৫০০ পেটালিং জায়া, সেলাঙ্গর।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন