২ সন্তানের মায়ের সঙ্গে ১১ বছরের ছোট যুবকের প’র’কী’য়া, অতঃপর…

প্রকাশিত: ফেব্রু ১২, ২০২০ / ০৯:৪৫অপরাহ্ণ
২ সন্তানের মায়ের সঙ্গে ১১ বছরের ছোট যুবকের প’র’কী’য়া, অতঃপর…

বয়সে ছোট যুবকের সঙ্গে বিবাহ ব’হি’ভূত স’ম্পর্কে জড়িয়েছিলেন গৃহবধূ। সম্পর্কের টানাপোড়েনের জে’রে সেই প্রেমিকাকে খু’ন করে আ’ত্ম’ঘা’তী হলেন প্রেমিক যুবক। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পূর্ব বর্ধমানের ভাতারে। এই ঘটনায় ব্যাপক চা’ঞ্চ’ল্য ছড়িয়েছে এলাকায়।

আ’ত্ম’ঘা’তী প্রেমিকের নাম জয়ন্ত সিং। বয়স ২৪ বছর। বাড়ি ভাতারের খেড়ুর গ্রামের পালপাড়ায়। জানা গেছে, অবিবাহিত জয়ন্ত সিংয়ের সঙ্গে প’র’কী’য়া সম্পর্কে গড়ে উঠেছিল পম্পা রায়ের।

পাশের গ্রাম ছাদনি পশ্চিমপাড়ার বাসিন্দা পম্পা বয়সে জয়ন্তের থেকে ১১ বছরের বড়। ৩৫ বছরের বিবাহিতা পম্পা রায়ের এক ছেলে ও এক মেয়েও আছে।

এই নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই যুগলের মধ্যে টানা’পো’ড়েন চলছিল। সম্প্রতি দুজনের সম্পর্কের অবনতি ঘটে। জয়ন্ত সিংয়ের সঙ্গে সম্পর্ক আর টিকিয়ে রাখতে চাইছিলেন না পম্পা রায়।

মেলামেশা বন্ধ করে দেন তিনি। অ’ভি’যো’গ, এরপরই সোমবার সন্ধ্যায় তাকে বাড়ির বাইরে ডেকে নিয়ে যান জয়ন্ত। ডেকে নিয়ে গিয়ে পম্পাকে শ্বা’স’রো’ধ করে খু’নে’র পর, দে’হ বাড়ির পাশের পুকুরে ফেলে দেন।

তারপরই নিজেও আ’ত্ম’ঘা’তী হন জয়ন্ত সিং। এদিন সকালে পুকুরে পম্পা রায়ের দেহ ভাসতে দেখেন প্রতিবেশীরা। অন্যদিকে বাড়ির ভিতর থেকে গলায় ফাঁ’স দেওয়া অবস্থায় উদ্ধার হয় জয়ন্ত সিংয়ের ঝু’ল’ন্ত দে’হ। এই ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে ভাতার থানার পুলিশ। দেহ দুটি উদ্ধারের পর ম’য়’না’ত’দ’ন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন