২০০ বছরের পুরনো পিলার মিলল ফরিদপুরের পুকুরে!

প্রকাশিত: ফেব্রু ১০, ২০২০ / ১০:০৮অপরাহ্ণ
২০০ বছরের পুরনো পিলার মিলল ফরিদপুরের পুকুরে!

ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলী এলাকার জুবলী ট্যাংক নামের পুকুর সংস্কার কাজের সময় ২০২ বছরের পুরনো সীমানা পিলার উদ্ধার করা হয়েছে।

সোমবার সকালে শ্রমিকেরা পুকুর পাড়ের মাটি খননের সময় ১৮১৮ সালের পুরনো সীমানা পিলারটি দেখতে পায়। পরে পৌরসভা কর্তৃপক্ষ খবর পেয়ে পিলারটি উদ্ধার করে তাদের হেফাজতে নিয়ে রাখে।

পিলারটি এক নজর দেখতে উৎসুক জনতা পুকুর পাড়ে ভিড় জমায়। বিষয়টি জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসনসহ প্রত্নতত্ত্ব বিভাগকে জানানো হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, শহরের ঝিলটুলী এলাকার পুরনো জুবলী ট্যাংক পুকুর সংস্কারে মাটি খনন কাজের সময় শ্রমিকেরা এটি দেখতে পান। খবর পেয়ে পুলিশ সীমানা পিলারটির সিজার লিস্ট করে তাদের হেফাজতে নিতে চাইলে পৌর কর্তৃপক্ষ সেটি তাদের হেফাজতে রেখেছে।

এ ব্যাপারে পৌরসভার মেয়র শেখ মাহতাব আলী মেথু সাংবদিকদের জানান, ১৮১৮ সালের সীমানা পিলার সদৃশ্য বস্তুটি উদ্ধার করে আনা হয়েছে। জুবলী ট্যাংক সংস্কার কাজের ঘাটলা নির্মাণের সময় এটি শ্রমিকেরা দেখতে পান।

এটি উদ্ধার করে জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসনকে জানানো হয়েছে। এ ছাড়া বিষয়টি প্রত্নতত্ত্ব বিভাগসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে জানানো হয়েছে। তারা এসে এটি পরীক্ষা করে যদি মূল্যবান বস্তু হয় তাহলে সংরক্ষণ করতে পারে। আর যদি তারা না নেয় তাহলে পৌরসভায় যথোপযুক্ত স্থানে সংরক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে।

পিলার দেখতে আসা উৎসুক জনতার অনেকে বলেছেন, এমন পুরনো পিলারের মূল্য কয়েক কোটি টাকা। অনেকে বলছেন এটি অমুল্য সম্পদ।

কথিত রয়েছে, এ সীমানা পিলারটিতে ম্যাগনেট রয়েছে। আবার আনেকে বলছেন এটি দিয়ে নাকি পারমাণবিক বোমা বানাতে কাজে লাগে। এ ছাড়া জেলার অনেক স্থানে এ ধরনের পুরনো সীমানা পিলার খুঁজতে গিয়ে অনেকে বছরের পর বছর সময় নষ্ট করে দেউলিয়া হয়ে পাগল হয়েছেন। আবার অনেকে এ ধরনের পিলার বিক্রি করে অনেক ধনী হয়েছেন।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন