আল্লাহর নামে ঘর থেকে বেরিয়েছি, কোনো বাধা আটকাতে পারবে না: ইশরাক

প্রকাশিত: ফেব্রু ১, ২০২০ / ১২:৫০অপরাহ্ণ
আল্লাহর নামে ঘর থেকে বেরিয়েছি, কোনো বাধা আটকাতে পারবে না: ইশরাক

নির্বাচনে যে কোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তত আছেন বলে জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটির বিএনপির মেয়র প্রার্থী ইঞ্জি‌নিয়ার ইশরাক হোসেন।

তিনি বলেন, কোনো বাধাই আমাকে আটকাতে পারবে না। আমি আজকে আল্লাহর নাম নিয়ে এবং আমার বাবাকে স্মরণ করে বাসা থেকে বের হয়েছি। আমি একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান। যে কোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সম্পূর্ণ প্রস্তত আছি।

‘আজকে যদি আমাকে হা’মলার শিকার হতে হয়, আহত হতে হয়, হব। তবুও ভোটকেট দখলমুক্ত এবং ভোটারদের নিরাপদভাবে ভোট দেয়ার জন্য যা যা করা দরকার তা আমি করব।’

শনিবার সকাল ৮ টা ৫০ মিনিটে মতিঝিলের আরকে মিশন রোডের শহীদ শাহজাহান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভোট দেন তিনি। আর এটাই তার জীবনের প্রথম ভোট। যা নিজের মার্কা ধানের শীষে ভোট দেন।

ভোট দিয়ে ইশরাক হোসেন আরও বলেন, আমি আমার জীবনে প্রথম ভোট দিলাম। ধানের শীষে আমার ভোট দিয়েছি। একইসঙ্গে বিএনপি সমর্থিত দুই কাউন্সিলর প্রার্থীকেও ভোট দিয়েছি। বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রে সিসি ক্যামেরার লাইন গতকাল রাতেই কেটে দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করে ইশরাক বলেন, তার কিছু ভিডিও পেয়েছি; যা আপনাদের শেয়ার করেছি।

‘এছাড়া বংশালের একটি কেন্দ্রে রাতে আওয়ামী লীগ কর্মীরা ঢোকার চেষ্টা করেছিল। এসময় বাধা দেয়ায় তারা আমাদের এক কর্মীর মাথা ফাটিয়ে দেয়। পরে এলাকাবাসী ধাওয়া দিয়ে তাদের তাড়িয়ে দেয়।’

বিএনপির এ প্রার্থী আরও বলেন, অনেক কেন্দ্রে বিএনপির এজেন্টদের ঢুকতে দেয়া হচ্ছে না। এ বিষয়ে ম্যাজিস্ট্রেটকে অবহিত করা হয়েছে। এছাড়া কেন্দ্রে এজেন্টরা কেন আসছে না তা জানার চেষ্টা করব।

তিনি বলেন, বিভিন্ন জরিপে ধানের শীষ ৮০ শতাংশের বেশি এগিয়ে আছে। যদি ঠিকমতো ভোট হয় তাহলে বিপুল ভোটে জয়ী হব ইনশাআল্লাহ।

ইভিএম প্রসঙ্গে ইশরাক বলেন, শুরু থেকেই বলে আসছি, ইভিএমে মানুষের আস্থা নেই। জয়ী হলেও একই কথা বলব।

তিনি আরও বলেন, দক্ষিণ সিটিতে অনেকগুলো মনিটরিং সেল গঠন করা হয়েছে। আপনারা চাইলে যে কেউ সেখানে অভিযোগ জানাতে পারবেন।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন