টেস্টের মতো টি-টোয়েন্টি খেলে বাংলাদেশ!

সবশেষ ভারত সফরে টি-টোয়েন্টি সিরিজে দুর্দান্ত খেলে বাংলাদেশ দল। পাকিস্তান সফরেও সেই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখবে সেই প্রত্যাশাই ছিল ক্রিকেটপ্রেমীদের। কিন্তু পাকিস্তানে গিয়ে পাওয়ার হিটিং ব্যাট করাতো দূরে থাক প্রতিরোধও গড়তে পারেনি বাংলাদেশ।

তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম দুই খেলায় ৫ ও ৯ উইকেটে হেরে ট্রফি হাতছাড়া করে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের নেতৃত্বাধীন দলটি। সোমবার সিরিজের শেষ ম্যাচটি বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয়।

পাকিস্তান সফরে টি-টোয়েন্টি সিরিজে বাংলাদেশের কেন এমন অসহায় আত্মসমর্পণ? ময়নাতদন্তে বেরিয়ে এসেছে টাইগার ব্যাটসম্যানদের পাওয়ার হিটিং ব্যাটিংয়ের দুর্বলতা।

শুক্রবার লাহোরে প্রথম ম্যাচে ৫ উইকেট হারিয়েই ১৪১ রান করে বাংলাদেশ। টার্গেট তাড়া করতে নেমে তিন বল হাতে রেখে ৫ উইকেটের জয় পায় স্বাগতিক পাকিস্তান।

শনিবার দ্বিতীয় ম্যাচে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৩৬ রান করতে সক্ষম হয় বাংলাদেশ। টার্গেট তাড়া করতে নেমে ২০ বল হাতে রেখে ৯ উইকেটের বিশাল জয় পায় পাকিস্তান।

পাকিস্তান সফরে পাওয়ার হিটিং ব্যাটিংয়ে ব্যর্থ টাইগার ব্যাটম্যানরা। বলকে বাউন্ডারি ছাড়া করার মতো শট খেলতে পারেননি তেমন কেউই।

ধারণা করা হয়েছিল সবশেষ বিপিএল খেলে ফুরফুরে মেজাজে থাকা ক্রিকেটাররা পাকিস্তান সফরে গিয়ে জোরে শট খেলতে পারবেন। লাহোরে টাইগারদের ব্যাটিং দেখে মনে হয়েছে তারা টি-টোয়েন্টি নয় খেলছেন টেস্ট ম্যাচ।

পাকিস্তানে দ্বিতীয় ম্যাচ শেষে বাংলাদেশ দলের কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো বলেছেন, আমাদের এমন ব্যাটসম্যান দরকার যারা বলটাকে মেরে সীমানার বাইরে পাঠাতে পারেন। বাংলাদেশ দলের এই ধরনের ক্রিকেটারের অভাব রয়েছে।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত