আই’এস নেতা আটক, নিতে হলো ট্রাকে করে

প্রকাশিত: জানু ১৮, ২০২০ / ০১:৩২অপরাহ্ণ
আই’এস নেতা আটক, নিতে হলো ট্রাকে করে

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জ’ঙ্গি গোষ্ঠী আ’ইএসের জ্যেষ্ঠ ধর্মীয় নেতা আবু আবদ-আল বারীকে গ্রে’ফতার করেছে ই’রাকি নি’রাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা।

আ’ইএসের দাসত্ব, ধ’র্ষণ, নি’র্যাতন ও জাতিগত নি’ধনের পৃষ্ঠপোষকতার অ’ভিযোগ রয়েছে তার বি’রুদ্ধে। ১৩৫ কেজি ওজনের এই আ’ইএস নেতার স্থূলতার কারণে পু’লিশের গাড়ির বদলে পিক-আপে করে কা’রাগারে নিয়ে যেতে হয়েছে।

২০১৪ সালে ইউনুস নবীর ম’সজিদে বো’মা হা’মলায় উ’সকানি দেয়ার জন্য তাকে দা’য়ী করা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার তাকে আ’টকের কথা জানিয়েছে ই’রাকের নি’রাপত্তা বিষয়ক গণমাধ্যম সেল। এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আ’ইএসের কথিত শরিয়া কর্মকর্তা ও মুফতি বারীকে মানসুর এলাকা থেকে গ্রে’ফতার করা হয়েছে।

ত’দন্ত ও তথ্যের ব্যাপক যথার্থতার পরেই তাকে গ্রে’ফতারের কথা জানিয়েছে তারা।

আ’টক এই মুফতির নাম শিফা আল-নিমা হলেও আ’ইএসের ভেতর তাকে আবু আবদ আল-বারী নামেই ডাকা হয়। মসুলের বিভিন্ন ম’সজিদে ধর্মীয় প্রচারের দায়িত্ব পালন করছিলেন তিনি।

ই’রাকি নি’রাপত্তা বাহিনীর বি’রুদ্ধে উ’সকানিমূলক বক্তব্য দেয়ার অ’ভিযোগ রয়েছে তার বি’রুদ্ধে। এছাড়া আ’ইএসের আনুগত্য ও তাদের সঙ্গে যুক্ত হতে লোকজনকে তিনি উ’সকানি দিতেন। মসুল আ’ইএসের নিয়ন্ত্রণে থাকা অবস্থায় শি’শুদের উগ্রপন্থা শিক্ষা দিতে তিনি আহ্বান জানিয়ে আসছিলেন।

আ’ইএসের প্রথম সারির একজন নেতা বলা হয়ে থাকে বারীকে। বেশ কয়েকজন পণ্ডিত ও বুদ্ধিজীবীকে হ’ত্যায় তিনি ফতোয়া দিয়েছিলেন।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন