তবে কি পাকিস্তান ছেড়েই চলে যাবেন ক্রিকেটার আমির

প্রকাশিত: জানু ১৭, ২০২০ / ১২:৩৮অপরাহ্ণ
তবে কি পাকিস্তান ছেড়েই চলে যাবেন ক্রিকেটার আমির

বাংলাদেশের বিপক্ষে টি২০’র জন্য স্কোয়াড ঘোষণা করবে আর মোহাম্মদ আমির সেই স্কোয়াডে থাকবেন না; তা কী করে হয়। কেবল পাকিস্তান নয়, ভিনদেশি ক্রিকেটভক্তরা বোধ হয় এমনটা কল্পনাও করেননি। সেই কল্পনার বাহিরের কাজটাই কিনা বাস্তবে করে দেখাল পিসিবি। আমিরকে ছাড়াই তারা টি২০ দল ঘোষণা করল।

মানতে পারেননি আমির। তাৎক্ষনিক এক টুইট বার্তায় নিজের মনের দু:খ প্রকাশ করেন। যদিও অনেক কথাগুলো এক বাক্যে বলেন আমির, ‘তাহলে টেস্ট ছাড়ার কারণেই এমন হলো’। মুহূর্তেই ইন্টারনেট দুনিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে এই টুইট বার্তা। তার সমর্থকরাও ওই টুইটের নিচে কমেন্ট করে আমিরকে সমবেদনা জানান।

তারই মাঝে পাকিস্তানি সাংবাদিক আবিদ খইয়ুমের কমেন্ট পড়ে, ‘এটা মোটেও উচিত হয়নি। এমন কিছু হলে আমির হয়তো দেশ ছাড়তেও পরোয়া করবে না। জানি না সে এই সিদ্ধান্ত নেবে কিনা। তবে সামনেও যদি তার সাথে এ রকম কিছু হয় তাহলে বোধ হয় পাকিস্তানই ছেড়েই চলে যাবেন। কে জানে নাকি এরিমধ্যে তেমন কিছু ভেবেও রেখেছেন।’

রীতিমত লঙ্কাকাণ্ড। অথচ এই আমিরকে মাঠে ফেরানোর জন্য পিসিবি কী না করেছে। নিষিদ্ধ হওয়ার পর তাকে নিয়মিত অনুশীলন করার সুযোগ করে দেয়। এরপর নিষেধাজ্ঞা শিথিল হওয়ার পর দেশের বাহিরে ঘরোয়া লিগ খেলারও সুযোগ করে দেয়। তার প্রতি এখন তাদের বিরূপ মনোভাব।

আসল ঘটনা টেস্ট থেকে অবসর। এত তাড়াতাড়ি আমির টেস্ট ছাড়বে, ভাবেননি পিসিবি কর্তারা। সেজন্য সাবেক ক্রিকেটাররাও তার ওপর নাখোশ। যতদূর জানা গেল, পাকিস্তান কেবল বাংলাদেশের বিপক্ষেই নয়, সামনের সিরিজগুলোতেও তাকে দলে ডাকবে না। এমনও হতে পারে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টি২০ বিশ্বকাপ আমিরকে ছাড়াই খেলবে পাকিস্তান।

আর এতটা হার্ড লাইনে গেলে আমিরও হাত গুটিয়ে বসে থাকবে না। কেননা পাকিস্তান ক্রিকেটারদের অতীত বলছে, তারা অন্য দেশের হয়ে ২২ গজে খেলেন। বর্তমানেও এমন কয়েকজন আছেন, যারা অন্য দেশের নাগরিকত্ব নিয়ে তাদের জার্সি গায়ে মাঠ মাতাচ্ছেন। সেক্ষেত্রে ভবিষ্যতে যে আমিরও এমন কিছু করবেন না, তার তো গ্যারান্টি নেই।

উল্লেখ্য, লাহোরে আগামী ২৪ জানুয়ারি শুরু হবে টি-টোয়েন্টি সিরিজ। দুদলের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি মাঠে গড়াবে পরদিন। এরপর একদিনের বিশ্রাম। ২৭ জানুয়ারি তৃতীয় ম্যাচ দিয়ে শেষ হবে সিরিজ। এরপর দেশে ফিরে আসবে বাংলাদেশ দল। দ্বিতীয় দফায় পাকিস্তানে গিয়ে ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে রাওয়ালপিন্ডিতে তারা খেলবে প্রথম টেস্ট। আর তৃতীয় দফায় আগামী ৩ এপ্রিল করাচিতে একমাত্র ওয়ানডের পর ৫ এপ্রিল সেখানেই দ্বিতীয় টেস্টে মাঠে নামবে বাংলাদেশ।

পাকিস্তান টি২০ স্কোয়াড

বাবর আজম (অধিনায়ক), আহসান আলী, আম্মাদ বাট, হারিস রৌফ, ইফতেখার আহমেদ, ইমাদ ওয়াসিম, খুশদিল শাহ, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ হাসনাইন, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মুসা খান, শাদাব খান, শাহিন শাহ আফ্রিদি, শোয়েব মালিক ও উসমান কাদির।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন