আ’লীগসহ ১৪ দল নির্বাচনে জনগণের রায় মেনে নেবে: নাসিম

প্রকাশিত: ডিসে ২৭, ২০১৯ / ১০:১০অপরাহ্ণ
আ’লীগসহ ১৪ দল নির্বাচনে জনগণের রায় মেনে নেবে: নাসিম

আওয়ামী লীগ এ দেশের মানুষের অনুভূতির দল বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম এমপি।

মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবের হাতে গড়া সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা অর্জন থেকে শুরু করে দেশের সব অর্জনে নেতৃত্ব দিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচন নিয়ে কোনো সংশয় নয়, নির্বাচনে হার-জিত মেনে নেবে আওয়ামী লীগসহ দলের নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট। আওয়ামী লীগ জনগণের দল, নির্বাচনে জনগণের কাছে যাবে। জনগণের রায় মেনে নেবে। কিন্তু নির্বাচনে হেরে গেলে কোনো দল কারচুপির অজুহাত তুলে ষড়যন্ত্র করবে তা এ দেশের জনগণ মেনে নেবে না।

শুক্রবার বিকালে সিরাজগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি সদ্য প্রয়াত সিরাজুল ইসলাম খানের শোক ও স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোহাম্মদ নাসিম মরহুম সিরাজুল ইসলাম খানকে একজন বিনয়ী ও সত্যিকারের নির্লোভ, ত্যাগী রাজনীতিবিদ উল্লেখ করে বলেন, তিনি কখনও অন্যায়ের সঙ্গে আপস করেননি। তিনি নিজের জন্য নয়, জনগণের জন্য রাজনীতি করেছেন। তার মতো নিরহঙ্কার, আদর্শবান ও যোগ্য নেতা এ সময়ের রাজনীতিতে খুবই প্রয়োজন ছিল।

জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি, মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রবীণ জননেতা সিরাজুল ইসলাম খানের মৃত্যুতে সিরাজগঞ্জ বাজার স্টেশন মুক্তির সোপানে জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত এ স্মরণসভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবদুল লতিফ বিশ্বাস।

সভায় প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ডা. হাবিবে মিল্লাত মুন্না এমপি।

বক্তব্য রাখেন আবদুল মমিন মণ্ডল এমপি, যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা প্রবীণ সাংবাদিক আমিনুল ইসলাম চৌধুরী, মুক্তিযুদ্ধকালীন রণাঙ্গনের সাথী মেজর (অব.) মোজাফ্ফর হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি আবু ইউসুফ সূর্য, অ্যাডভোকেট কেএম হোসেন আলী হাসান, অ্যাডভোকেট বিমল কুমার দাস, হাজী ইসহাক আলী, পৌর মেয়র সৈয়দ আবদুর রউফ মুক্তা, মরহুম সিরাজুল ইসলাম খানের ছেলে শাহনেয়াজ খান সুমন প্রমুখ।

আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলনে তৃতীয়বার প্রেসিডিয়াম সদস্য মনোনীত হওয়ার পর শুক্রবার বিকালে মোহাম্মদ নাসিম ঢাকা থেকে সিরাজগঞ্জে আসার পথে বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমপাড়ের গোলচত্বরে পৌঁছলে দলের নেতাকর্মীরা তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

পরে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে সেতুর পশ্চিমপাড়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি এবং সিরাজগঞ্জ শহরের প্রবেশমুখ মুলিবাড়িতে তার বাবা জাতীয় নেতা শহীদ এম মনসুর আলীর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে ১ মিনিট নীরবতা পালন করেন।

পরে সিরাজগঞ্জ থেকে কাজিপুর যাওয়ার পথে মোহাম্মদ নাসিমকে সিরাজগঞ্জের কাঠেরপুল, ফকিরতলা, শাহানগাছা, ছোনগাছা, পিপুলবাড়িয়া ও সীমান্তবাজার এলাকায় দলীয় নেতাকর্মীরা ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন