দেশে ফেরার কারণ জানালেন মোসাদ্দেক

ভারতের বিপক্ষে আশা জাগিয়েও ২-১ ব্যবধানে টি-টোয়েন্টি সিরিজ হেরেছে বাংলাদেশ। সেই ধকল কাটিয়ে না ওঠার আগেই টেস্ট খেলতে ইন্দোরে পাড়ি জমিয়েছেন টাইগাররা। তবে লংগার ভার্সনের দলে থাকলেও সতীর্থদের সঙ্গে সেখানে যাননি মোসাদ্দেক হোসেন। মায়ের অসুস্থতার কারণে খেলা ছেড়ে নাগপুর থেকেই দেশের বিমান ধরেছেন তিনি।

গেল সোমবার বিকালে ইন্দোরে পৌঁছায় বাংলাদেশ। সেখানে দলের সঙ্গে যোগ দেন অধিনায়ক মুমিনুল হক ও বাঁহাতি ওপেনার সাদমান ইসলামরাও। তবে টেস্ট দলের বাইরে থাকা ৭ টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটারের সঙ্গে দেশে ফেরেন মোসাদ্দেক। ওই ৭ খেলোয়াড় হলেন সৌম্য সরকার, শফিউল ইসলাম, আরাফাত সানি, নাঈম শেখ, আফিফ হোসেন, আবু হায়দার রনি ও আমিনুল ইসলাম বিপ্লব।

ঢাকায় পা রেখে সোশ্যাল মিডিয়ায় দেশে ফেরার কারণ জানান মোসাদ্দেক। নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে মায়ের অসুস্থতার খবর জানিয়ে তিনি লিখেন,আশা করি, এখন সবাই বুঝতে পারবেন কেন আমি ভারত থেকে ফিরে এসেছি। আমার মায়ের লিভার ঠিকভাবে কাজ করছে না এবং জরুরি অস্ত্রোপচার দরকার। অনুগ্রহ করে, সবাই আমার মায়ের জন্য দোয়া করবেন। ক্রিকেট ও বাংলাদেশ দল সবসময় আমার জীবনের অবিচ্ছেদ্য অংশ। আমার সব শুভাকাঙ্ক্ষীর জন্য ভালোবাসা।

ভারতের বিপক্ষে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটি শুরু হবে ১৪ নভেম্বর ইন্দোরে। এরপর আগামী ২২ নভেম্বর কলকাতার ঐতিহ্যবাহী ইডেন গার্ডেন্সে শেষ ম্যাচ খেলতে নামবে দুই দল। ঐতিহাসিক টেস্টটি হবে দিবারাত্রির। স্বভাবতই খেলা গড়াবে গোলাপি বলে। ঘণ্টা বাজিয়ে এর উদ্বোধন করবেন বাংলাদেশ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি।

এসময় উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের হয়ে প্রথম টেস্ট খেলা ক্রিকেটাররা। হাজির থাকবেন ইতিহাস গড়া ওই টেস্টের প্রতিপক্ষ ভারত দলের খেলোয়াড়রাও। বিশেষ নিমন্ত্রণ পেয়েছেন সব ভারতীয় সাবেক অধিনায়ক।

ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের টেস্ট স্কোয়াড

ইমরুল কায়েস, সাদমান ইসলাম, সাইফ হাসান, মুমিনুল হক (অধিনায়ক), লিটন দাস, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), মোসাদ্দেক হোসেন, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোহাম্মদ মিঠুন, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, নাঈম হাসান, মোস্তাফিজুর রহমান, আবু জায়েদ, এবাদত হোসেন ও আল-আমিন হোসেন।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত