স্রেয়াশ ছয় ছক্কা হাঁকাতে চেয়েছিলো আফিফের সেই ওভারে

ভারতীয় তরুণ তারকা ব্যাটসম্যান স্রেয়াশ আয়ার বলেছেন, টানা তিন বলে ছক্কা হাঁকালে যে কোনো ব্যাটসম্যানই চাইবে ছয় বলে ছয়টি ছক্কা হাঁকাতে। আমারও তেমনই পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু চতুর্থ বলে আফিফ ইয়র্কার দেয়ার পর আমি সেই পরিকল্পনা থেকে সরে আসি। রোববার ভারতের নাগপুরে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয়ের পর এসব কথা বলেন ৩৩ বলে ৬২ রান করা স্রেয়াশ।

সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে ভারতীয় ইনিংসের ১৫তম ওভারে বোলিংয়ে এসেই স্রেয়াশ আয়ারের ব্যাটিং ঝড়ের কবলে পড়েন আফিফ হোসেন। বাংলাদেশ দলের এ তরুণ অফ স্পিনারকে টানা তিন বলে ছক্কা হাঁকান স্রেয়াশ আয়ার। পরপর ছক্কা খেয়ে চতুর্থ বল ইয়র্কার দেন আফিফ। সেই বলে কোনো রান নিতে পারেননি স্রেয়াশ। পঞ্চম বলে সিঙ্গেল রান নিয়ে ফিফটি পূর্ন করেন ভারতীয় এ টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান। তার ব্যাটিং তাণ্ডবে ১৭৪ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে ভারত। জবাবে ১৪৪ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ।

অথচ এ স্রেয়াশ আয়ারের শূন্য রানেই সাজঘরে ফেরার কথা ছিল। দুই ওপেনারের বিদায়ের পর ব্যাটিংয়ে নেমে দ্বিতীয় বলেই ক্যাচ তুলে দেন তিনি। কিন্তু স্কয়ার লেগে ফিল্ডিং করা অনভিজ্ঞ আমিনুল ক্যাচটি তালুবন্দি করতে পারেননি। যে কারণে দলীয় ৩৭ রানে শফিউল ইসলামের বলে নতুন লাইফ পান স্রেয়াশ। লাইফ পেয়ে তার সদ্ব্যবহার করেন তিনি। দিল্লিতে অনুষ্ঠিত প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ৭ উইকেটের দাপুটে জয় পাওয়া বাংলাদেশ এরপর রাজকোট ও নাগপুরে টানা দুই খেলায় পরাজিত হয়ে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ হারে টাইগাররা।

প্রিয় পাঠক, আপনার মূল্যবান শেয়ার / মতামতের এর জন্য ধন্যবাদ।

পাঠকের মতামত