স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করতে গিয়ে পিরোজপুরের নারী আটক

প্রকাশিত: জুন ২৩, ২০২২ / ০২:৪৩অপরাহ্ণ
স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করতে গিয়ে পিরোজপুরের নারী আটক

মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলায় দুই স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে নিয়ে যাবার সময় অপহরণকারী দলের এক সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ। এ সময় পুলিশ অপহরণকারীদের হাত থেকে ওই দুই স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করে।

ছিনতাইকারীর নাম শিল্পী আক্তার (৩০)। সে পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলায় শাপলা জোড় গ্রামের মো. পানা হাওলাদারের মেয়ে। আজ বুধবার (২২ জুন) দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

উদ্ধারকৃত জ্যোতি দাস (১২) ও জুই দাস সিরাজদিখান উপজেলার শেখরনগর মনিপাড়া গ্রামের প্রবাসী শ্রীকান্ত দাস ও জয় চরণ দাসের মেয়ে। তারা উত্তর শেখরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক
৫ম শ্রেণীতে পড়ে।

জানা যায়, সিরাজদিখান উপজেলার শেখরনগর ইউনিয়নের উত্তর শেখরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেনীর শিক্ষার্থী জ্যোতি দাস (১২) ও জুই দাস (১২) দুপুর দেড়টার দিকে স্কুল ছুটির পর বাড়ির দিকে রওনা হয়।

স্কুল থেকে প্রায় ১শত গজ দূরে গেলে ছিনতাইকারী শিল্পী আক্তার মিথ্যা প্রলোভন দেখিয়ে জ্যোতি দাস (১২) ও জুই দাসকে একটি অটোগাড়িতে উঠায়। পথিমধ্যে জ্যোতি দাসের কান থেকে স্বর্ণের দুল খুলে নেয়।

ঘটনাটি জানাজানি হলে পুলিশ ও এলাকাবাসীর সহযোগিতায় চিত্রকোট ইউনিয়নের বরাম বাজার এলাকা থেকে ওই দুই ছাত্রীকে উদ্ধারসহ শিল্পী আক্তারকে আটক করে শেখরনগর তদন্ত কেন্দ্র পুলিশ।

উত্তর শেখরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নিখিল রায় ঘটনার সত্যতা স্বীকার জানান, আমরা এতো সচেতন করার পরেও এরকম ঘটনা ঘটেছে। এর আগেও এরকম ঘটনা ঘটেছিল। ছাত্রীদের বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে গলার ও কানের স্বর্ণের জিনিস নিয়ে পালিয়ে যায়।

সিরাজদিখান থানার ওসি মো. মিজানুল হক জানান, আজ বুধবার দুপুরে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে স্কুলছাত্রী জ্যেতি দাস (১২) ও জুই দাসকে অপহরণ করে সন্ত্রাসীরা। এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়ের করার প্রক্রিয়া চলছে।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন