সৌদি প্রবাসীদের জন্য সুখবর

প্রকাশিত: নভে ২৫, ২০২১ / ১২:৩২পূর্বাহ্ণ
সৌদি প্রবাসীদের জন্য সুখবর

মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম দেশ সৌদি আরবের বিভিন্ন অঞ্চলে লাখ লাখ বাংলাদেশি প্রবাসীর বসবাস। আকাশপথে নিজ দেশে আসা-যাওয়া করতে এসব প্রবাসীর জন্য আগামী বছরের জুন থেকে ঢাকা থেকে জেদ্দা, রিয়াদ ও মদিনা রুটে ফ্লাইট শুরু করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স।

সম্প্রতি মালদ্বীপে ফ্লাইট শুরু করেছে ইউএস বাংলা। ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার অংশ হিসেবে সৌদি আরবে ফ্লাইট চলাচলের পরিকল্পনা করেছে বেসরকারি এই এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ। এমিরেটস, কাতার এয়ারওয়েজ, সৌদি এয়ারলাইন্স যাত্রীদের জন্য যে ধরনের এয়ারক্রাফট বিশেষ করে এয়ারবাস ব্যবহার করে থাকে। ইউএস-বাংলাও প্রবাসীদের জন্য একই ধরনের এয়ারক্রাফট ব্যবহার করে যাত্রীসেবা দেয়ার প্রস্তুতি নিয়েছে।

মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম গন্তব্য জেদ্দা, রিয়াদ, মদিনা রুটসহ ইউরোপে বিশেষ করে লন্ডন, আমস্টারডাম, রোমসহ বিভিন্ন গন্তব্যে ফ্লাইট পরিচালনার জন্য ২০২৩ সালের মধ্যে আটটি এয়ারবাস ৩৩০-২০০/৩০০ এয়ারক্রাফট যুক্ত করার পরিকল্পনাও আছে ইউএস-বাংলার।

২০১৪ সালের ১৭ জুলাই থেকে যাত্রা শুরু করা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স গত প্রায় ৮ বছর যাবত স্বল্প ও দীর্ঘ মেয়াদী পরিকল্পনা বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ এভিয়েশন মার্কেটে শক্ত অবস্থান তৈরীতে সক্ষম হয়েছে। যাত্রা শুরুর পর ধারাবাহিকভাবে দেশের অভ্যন্তরীণ রুটে ফ্লাইট পরিচালনা শুরু করেছে, এমনকি ক্রস কান্ট্রি ফ্লাইট ধারনা থেকে যশোর থেকে চট্টগ্রাম, কক্সবাজার কিংবা সৈয়দপুর থেকে চট্টগ্রামেও ফ্লাইট পরিচালনা করছে।

বাংলাদেশি এয়ারলাইন্স হিসেবে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স ঢাকা থেকে গুয়াংজু রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করছে। সেই সঙ্গে বাংলাদেশ থেকে ভারতের চেন্নাই ও কলকাতায় বিশেষ করে রোগীদের সুবিধার্থে ঢাকা থেকে চেন্নাই ও কলকাতায় সরাসরি ফ্লাইট পরিচালনা করছে ইউএস বাংলা।

বাংলাদেশি পর্যটকদের জন্য সাময়িকভাবে ঢাকা-ব্যাংকক রুটে ফ্লাইট পরিচালনা বন্ধ আছে। খুব শিগগির ঢাকা থেকে কলম্বো রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করতে যাচ্ছে ইউএস-বাংলা।

পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স দু’বছর পূর্তি হওয়ার পূর্বেই ঢাকা থেকে কাঠমান্ডু রুটে ফ্লাইট পরিচালনার মাধ্যমে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রবেশ করে। ব্যবসায়ের অগ্রযাত্রার স্থিতিশীলতা বজায় রেখে এগিয়ে চলা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স এর বিমান বহরে ৪টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০, ৭টি ব্যান্ডনিউ এটিআর ৭২-৬০০ সহ মোট ১৪ টি এয়ারক্রাফট রয়েছে।

আগামী পাঁচ মাসের মধ্যে বিমান বহরে ৩টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ ও ৪টি ব্যান্ডনিউ এটিআর ৭২-৬০০ যোগ করতে যাচ্ছে ইউএস-বাংলা।

সূত্র : ঢাকাটাইমস

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন