করোনা টিকার বুস্টার ডোজ নিলেন বাইডেন

প্রকাশিত: সেপ্টে ২৮, ২০২১ / ১২:৫৫অপরাহ্ণ
করোনা টিকার বুস্টার ডোজ নিলেন বাইডেন

করোনা টিকার বুস্টার ডোজ নিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। দেশটির স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা ৬৫ বছর বা তার চেয়ে বেশি বয়সী এবং অন্য কিছু মানুষের জন্য বুস্টার ডোজের সুপারিশ করার পর ৭৮ বছর বয়সী মার্কিন প্রেসিডেন্ট বুস্টার ডোজ নিলেন। তিনি সোমবার ক্যামেরার সামনে টিকার তৃতীয় ডোজ গ্রহণ করেন। টিকা নেয়ার পূর্বে তিনি কিছু কথা বলেন। সূত্র: সিবিসি নিউজ।

যুক্তরাষ্ট্রের ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন গত সপ্তাহে বুস্টার ডোজের জন্য ফাইজার টিকার অনুমোদন করেন। প্রথম দুই ডোজ নেয়ার ছয় মাস পর তৃতীয় ডোজ নেয়া যাবে। যাদের বয়স ৬৫ বা তার বেশি, যাদের শারীরিক অবস্থা ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে এবং যারা ঝুঁকিপূর্ণ পরিবেশে কাজ করেন তারাই তৃতীয় ডোজ নিতে পারবেন। দেশটির সেন্টার ফর ডিজেজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনও এই সমস্ত মানুষের জন্য বুস্টার শটের অনুমতি দিয়েছে।

এদিন জো বাইডেন বলেন, ‘আমি বিষয়টি পরিষ্কার করতে দিন। বুস্টার ডোজ গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে, আমাদের আরও বেশি মানুষকে ভ্যাকসিনের আওতায় আনতে হবে। আমেরিকার সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষ সঠিক কাজটি করছে। ৭৭ শতাংশেরও বেশি পূর্ণবয়স্ক মানুষ কমপক্ষে টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছে। ২৩ শতাংশ মানুষ এখনও ভ্যাকসিন নেয়নি। অল্প কিছু মানুষ চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়াচ্ছে। তারা দেশের অন্যান্য মানুষের ক্ষতি করছে। এই কারণেই আমি টিকা কার্যক্রমের উপর জোর দিচ্ছি।’

জো বাইডেন বুধবার শিকাগো ভ্রমণ করবেন। সেখানে তিনি টিকার গুরুত্ব সম্পর্কে কথা বলবেন। প্রতিটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের কর্মীদের টিকা দেয়া কতটা গুরুত্বপূর্ণ সে সম্পর্কে তিনি সকলকে বুঝাবেন। যুক্তরাষ্ট্র সরকার ইতোমধ্যে ঘোষণা দিয়েছে যে, যেসব প্রতিষ্ঠানে কমপক্ষে ১০০ জন কর্মকর্তা-কর্মচারী চাকরি করেন তাদের বাধ্যতামূলকভাবে করোনার টিকা নিতে হবে। তা না হলে প্রতি সপ্তাহে করোনা পরীক্ষা করাতে হবে।

গত জানুয়ারিতে টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করেছিলেন বাইডেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেছেন, টিকার প্রথম এবং দ্বিতীয় ডোজ নেয়ার পর তার শরীরে কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয়নি।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন