Bangladesh News24

সব

হাত ধরে মেয়েটিকে সাঁকো পার করার শাস্তি বিয়ে! ময়মনসিংহে কি হলো তার পর জানুন

মেয়েটি পড়ে ষষ্ঠ শ্রেণিতে, ছেলেটি নবমে। সম্পর্কে তারা প্রতিবেশী। সম্প্রতি বারুণী মেলা থেকে বাড়ি ফেরার পথে মেয়েটির হাত ধরে খালের ওপর ঝুুঁকিপূর্ণ সাঁকো পার হতে সাহায্য করেছিল ছেলেটি। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তোলে একটি চক্র। তাদের শেখানো কথা অনুযায়ী মেয়ের পরিবারও একই অভিযোগ তোলে। এরপর গ্রাম্য সালিস বসে। তাতে সিদ্ধান্ত হয় উভয়ের বিয়ে দেওয়ার। বিয়ের তারিখও ঠিক করা হয়েছে—আগামী শুক্রবার। দেনমোহর দেড় লাখ, যৌতুক ৪০ হাজার টাকা। ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার রাজগাতী ইউনিয়নের বিলভাদেরা গ্রামে ঘটেছে এই ঘটনা।

স্থানীয়রা জানায়, গত শনিবার সকালে আওয়ামী লীগ নেতা ইফতেকার মমতাজ খোকনের নেতৃত্বে গ্রামে সালিস বসে। তাতে রাজগাতী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সাবেক ও বর্তমান কয়েকজন সদস্যসহ ৩০-৩৫ জন অংশ নেন। তাঁদের মধ্য থেকে খোকন ১১ জনের একটি বোর্ড গঠন করে দেন। এ বিষয়ে তদন্ত করে ফলাফল জানাতে তাঁদের তিন ঘণ্টা সময় দেওয়া হয়। বোর্ডের সদস্যরা ছেলে ও মেয়ের সঙ্গে কথা বলা শেষে ফের সালিসে যোগ দেন। বেশির ভাগ সদস্য জানান, দোষ ছেলেটির। এ ক্ষেত্রে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়া যায়। পরে বিয়ের তারিখ ধার্য করা হয়।

খবর পেয়ে গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে বিলভাদেরা গ্রামে ওই ছেলেটির বাড়ি গেলে সে জানায়, উপজেলার গাংগাইল ইউনিয়নের মিশ্রিপুর দাখিল মাদরাসার নবম শ্রেণিতে পড়ছে সে। পড়ালেখার ফাঁকে বড় ভাইয়ের সঙ্গে ভৈরব গিয়ে তৈরি পোশাক বিক্রি করে। বড় ভাই কিশোরগঞ্জের গুরুদয়াল কলেজে স্নাতকে পড়ে। দুজনের রোজগারেই সংসার চলে।

বিয়ে প্রসঙ্গে ছেলেটি বলে, ‘নিজের ইচ্ছায় আমি এই বিয়ে করছি না। গ্রামের কিছু মাতবর বিষয়টি চাপিয়ে দিয়েছে। বিয়ে না করলে পরিবারের সবাইকে মামলায় আসামি করার হুমকি দিয়েছে তারা। আমরা গরিব মানুষ। সালিসে আমাদের কথা কেউ শোনেনি। ’

বিলভাদেরা গ্রামের বেশ কয়েকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, গত চৈত্র মাসের শেষ দিকে স্থানীয় কালীগঞ্জ বাজারে আয়োজিত বারুণী মেলা থেকে ফেরার পথে মেয়েটিকে সাঁকো পার হতে সাহায্য করেছিল ছেলেটি। এই ঘটনায় রং চড়িয়েছে একটি চক্র। পরে তাদের কথামতো মেয়েটি ছেলেটির বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তোলে।

মেয়েটির ভাষ্য অনুযায়ী, ছেলেটি তাকে শুধু সাঁকো পার করিয়ে দেয়নি, সন্ধ্যার পর পাশের একটি ভুট্টাক্ষেতে তাকে নিয়ে নির্যাতনও করেছে। তবে ছেলেটির দাবি, মেয়েটির অনুরোধেই ওই দিন বিকেলে হাত ধরে তাকে সাঁকো পার হতে সাহায্য করেছিল সে। তখন সাঁকোর ওপর দিয়ে এলাকার অন্য লোকজনও পারাপার হয়েছিল। কোনো ধরনের নির্যাতনের ঘটনা ঘটেনি।

ছেলেটির ভাষ্য, ‘গত শনিবার রাজগাতী ইউপির সাবেক সদস্য মো. ফাইজুল ইসলামের বাড়ির সামনে সালিসের আয়োজন করা হয়। তাতে আমাকেও ডাকা হয়েছিল। আমি বলেছি, এ ধরনের জঘন্য কাজ আমি করিনি। যদি বিশ্বাস না হয় তাহলে মেয়েটিকে চিকিৎসক দিয়ে পরীক্ষা করার কথা বলেছি। কিন্তু আমার কথা কেউ শোনেনি। ওই সালিস থেকে বিয়ের সিদ্ধান্ত হয়। ’

ছেলেটির চাচা মোকসেদ আলী জানান, ওই সালিসে তাঁর ভাতিজাসহ পরিবারের ৯ জনের নামে একটি অভিযোগ লিখে আনা হয়। সিদ্ধান্ত না মানলে তা থানায় জমা দেওয়ার কথা বলা হয়।

মেয়েটির বাবা বলেন, ‘সালিসে যে সিদ্ধান্ত হয়েছে তা তো মানতেই হবে। না মানলে সমস্যা। ’ মেয়ের বয়স তো কম—এমন প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, কম তো হতেই পারে। তবে আমি সালিসের বাইরে যেতে পারব না।

সালিসে গঠন করা বোর্ডের সদস্য মো. জামাল উদ্দিন মেম্বার জানান, সালিসটি তাঁর ওয়ার্ডের নয়। তবে তাঁকে ডাকায় তিনি সেখানে উপস্থিত হয়েছিলেন। ছেলেটি দোষ স্বীকার করায় মাতবররা এই সিদ্ধান্ত দিয়েছে।

সালিসে উপস্থিত ফাইজুল ইসলাম বলেন, এ ধরনের সিদ্ধান্ত একরকম জোর করে ছেলের পক্ষকে চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। তিনি এর প্রতিবাদ করলেও কাজ হয়নি। এ ঘটনার বিচার হওয়া প্রয়োজন।

image-id-603550

যে বাড়িতে ঢুকলে কেউ বেঁচে ফিরেনা! রহস্য জানলে অবাক হবেন

image-id-603342

উত্তরপত্রে লেখা ‘স্যার নাম্বার একটু বাড়িয়ে দিবেন’

image-id-603177

দিনে ৩৬ টি ডিম, ৫ কেজি মাংস ও ৫ লিটার দুধ লাগে তার!

image-id-602845

রোগীর শরীরে অস্ত্রোপচার করবে ব্যাকটেরিয়া!

পাঠকের মতামত...
image-id-602772

সন্ন্যাসীদের আশ্চর্য ক্ষমতায় তাক লাগল হার্ভার্ডের বিজ্ঞানীদেরও

যোগ সাধনা ভারতবর্ষের চিরায়ত ঐতিহ্য। তার বলেই বহু অসাধ্য সাধন...
image-id-602743

মেয়েটিকে কামড়ে টেনে নিয়ে গেল সিল মাছ! (ভিডিও)

কেউ একজন ডক থেকে সিল মাছটির (সি লায়ন) দিকে খাবারের...
image-id-602677

বিশ্বের বিস্ময় মরুভূমির হাত!

মরুভূমির মাঝখানে বিশাল এক হাত। তবে সম্পূর্ণ একটি হাত নয়,...
image-id-602671

অসুস্থ মাছের জন্য হুইলচেয়ার

অসুস্থ মাছের জন্য ‘হুইলচেয়ারের’ ব্যবস্থা করেছেন অ্যাকুরিয়ামের এক কর্মী। আর...
image-id-603842

স্মার্টফোনে চার্জ থাকছে না? এখনই আন-ইনস্টল করুন এই ১০ অ্যাপ

সকালেই চার্জ দিচ্ছেন, অথচ কলেজ বা অফিস পৌঁছতে না পৌঁছতেই...
image-id-603840

গরমে মাথা ঠাণ্ডা রাখার কিছু উপায়

তীব্র তাপপ্রবাহে জনজীবন অতিষ্ঠ। চারিদিকে বৃষ্টির জন্য হাহাকার পড়ে গেছে।...
image-id-603835

রমজানে ভেজাল দমনে থাকবেন ৬শ স্যানিটারি ইন্সপেক্টর

রমজানে ভেজাল খাবার সরবরাহকারীর বিরুদ্ধে অভিযান চালাতে জেল জরিমানার মামলা...
image-id-603833

ভ্যাটের হার কমানো কষ্টকর: অর্থমন্ত্রী

মূল্য সংযোজন করের (মূসক বা ভ্যাট) হার কমানো বেশ কষ্টকর...
© Copyright Bangladesh News24 2008 - 2017
Published by BdNews24us.com
Email: [email protected] / [email protected]